বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ০৫:২৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
সবদিক বঞ্চিত সেন্ট মার্টিন দ্বীপের বাসিন্দারা হাতির অভয়ারণ্য ধ্বংস, ১৩ হাতির মৃত্যু কেন্দ্রে প্রথমবার এড.সিরাজুল মোস্তফা, জেলার দায়িত্বে এড.ফরিদুল ইসলাম চৌধুরী এড.সিরাজুল মোস্তফা আ.লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক হলেন খুরুশকুলে জলবায়ু উদ্বাস্তু পরিবারের জন্য আরও ১১৯টি ভবন নির্মাণের উদ্যোগ পেকুয়ায় ব্যক্তি উদ্যোগে কালভার্ট ও সড়ক সংস্কার জেলা ছাত্রলীগকে স্বাগত জানিয়ে কুতুবদিয়া ছাত্রলীগের আনন্দ মিছিল সবাই মিলে কাজ করলে শুঁটকি পল্লীতে শিশুশ্রম নিরসন করা অসম্ভব হবে না আইডিয়াল স্পোটিংসকে ২-১ গোলে হারিয়ে ব্রাদাস ফুটবল একাদশ চ্যাম্পিয়ন সোনাইছড়িতে আন্ত:ধর্মীয় সংলাপ অনুষ্ঠিত

যেভাবে মারা পড়ল ৩ রোহিঙ্গা ইয়াবা কারবারি

সিসিএন
  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ৯ জুলাই, ২০২০
  • ৬২ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

কক্সবাজারের কাছের সীমান্ত উপজেলা উখিয়ায় বিজিবির সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ তিন রোহিঙ্গা মাদক কারবারি নিহত হয়েছেন। ওই সময় তিন লাখ পিস ইয়াবা, দুটি দেশে তৈরি পাইপগান ও পাঁচ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করা হয়। বিজিবির দাবি, তারা সবাই মাদক কারবারে জড়িত ছিলেন।

বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) ভোর রাত ৪টার দিকে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার রাজাপালং ইউনিয়নের তুলাতলী জলিলের ঘোনা ব্রীজের পাশে এই ‘বন্দুকযুদ্ধে’র ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার তুমব্রু কোনারপাড়া জিরো পয়েন্টে অবস্থানরত রোহিঙ্গা ক্যাম্পের মৃত জুলুর মুল্লুকের ছেলে নুর আলম (৪৫), উখিয়ার বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্প-১ এর জি/২৯ ব্লকের মো. গোরা মিয়ার ছেলে মো. হামিদ (২৫) ও উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের-২ এর ডি-৪ ব্লকের মো. সৈয়দ হোসেনের ছেলে নাজির হোসেন (২৫)।

বিজিবি দাবি করছে, ‘বন্দুকযুদ্ধে’র ঘটনায় বিজিবির দুই সদস্যও আহত হয়েছেন। তাদের উখিয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

কক্সবাজারস্থ ৩৪ বিজিবি ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্ণেল আলী হায়দার আজাদ আহমেদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, সীমান্তের তুমব্রু সীমান্ত চৌকির (বিওপি) একটি দল টহল দেয়ার সময় দেখতে পায়, মিয়ানমার থেকে পাহাড়ি পথে ১০-১২ জন লোক বাংলাদেশ সীমান্তে প্রবেশ করেছে। এসময় চৌকির সদস্যরা তাদের চ্যালেঞ্জ করলে তারা বিজিবি সদস্যদের দিকে গুলিবর্ষণ করে। এ সময় আত্মরক্ষায় বিজিবি সদস্যরাও পাল্টা গুলি করেন।

তিনি দাবি করেন, এক পর্যায়ে হামলাকারিরা পাহাড়ের জঙ্গলে পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাস্থল তল্লাশি করে তিন লাখ পিস ইয়াবা, দুটি দেশে তৈরি পাইপগান ও পাঁচ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়। একইসঙ্গে তিনজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

এর আগে আহত অবস্থায় তাদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তাদের পরিচয় নিশ্চিত করে বিজিবি।

বিজিবির এই কর্মকর্তা বলেন, বিজিবি বিষয়টি উখিয়া থানাকে অবহিত করলে পুলিশের একটি দল উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে মৃত ব্যক্তিদের ময়না তদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2019 | কক্সবাজার ক্রাইম নিউজ
Theme Customized By Shah Mohammad Robel