শনিবার, ২৩ জানুয়ারী ২০২১, ১২:০৪ পূর্বাহ্ন

সমুদ্রে গোসল করতে নেমে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর মৃত্যু

সিসিএন
  • আপডেট সময় শুক্রবার, ২ অক্টোবর, ২০২০
  • ৩৩ বার পঠিত

কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে গোসল করতে নেমে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। আজ দুপুর আড়াই টার দিকে সৈকতের সিগ্যাল পয়েন্টে বন্ধুদের সাথে গোসল করতে নেমে ভাটার টানে ডুবে যান তিনি ৷ সে রাজধানী ঢাকার মিরপুরের সি ব্লক বাসু পাড়ার মাহমুদুল হোসাইনের ছেলে ফাতীন ইতমাম মাহমুদ। খবর পেয়ে টুরিস্ট পুলিশ ও লাইফ গার্ডের কর্মীরা তাকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ফাতিন কে মৃত ঘোষণা করে। নিহত ফাতীন ইস্টওয়েস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন।

ফাতীনের সঙ্গে থাকা বন্ধুরা বলেন, আমরা পাঁচ বন্ধু মোটর বাইক যোগে কক্সবাজারে বেড়াতে আসি। আমাদের ব্যাগ লাগেজ সৈকতের লকারে রেখে শুক্রবার বেলা আড়াইটার দিকে সাগরে গোসল করতে নামি। হঠাৎ স্রোতের টানে সাগরের পানি আমাদের নিয়ে যাচ্ছিল। আমরা চার বন্ধু কোনো রকমে প্রাণ নিয়ে তীরে উঠে দেখি ফাতীম স্রোতের টানে সাগরে ডুবে যাচ্ছে। তাড়াতাড়ি সৈকতের উদ্ধারকারী লাইফ গার্ড সদস্যদের খবর দিলে তারা অনেকক্ষণ খোঁজাখুঁজির পর তাকে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে।

কক্সবাজার ট্যুরিস্ট পুলিশের ওসি পিন্টু রায় বলেন, আজ দুপুরের দিকে আমরা সিগ্যাল পয়েন্টে দায়িত্ব পালন করছিলাম। এসময় লাইফ গার্ড কর্মীরা মুমূর্ষু অবস্থায় পর্যটক ফাতীমকে উদ্ধার করে। পরে আমরা তাকে চিকিৎসার জন্য দ্রুত জেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করি। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে। বর্তমানে ফাতীনের মরদেহ জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে রয়েছে বলে জানান তিনি।

এদিকে, দীর্ঘ পাঁচ মাস বন্ধ থাকার পর গত ১৭ অগাস্ট উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে সমুদ্র সৈকত। উন্মুক্ত সৈকতে প্রতিদিনই বেড়াতে আসছেন অগণিত পর্যটক। সৈকতের বালিয়াড়িতে এসে সাগরজলের সান্নিধ্য নিতে উন্মুখ হচ্ছেন সব বয়সিরাই। কিন্তু সাগরের আচরণ না বুঝে বা সাগর সম্পর্কিত নির্দেশনা না মেনে ঢেউয়ের ছোঁয়া নিতে গিয়ে অথই জলে হারিয়ে লাশ হচ্ছে অনেকে। এতে বিষাদে পরিণত হচ্ছে আনন্দ ভ্রমণ। তাই লাইফগার্ড, বিচকর্মীর নজরদারি করা পয়েন্ট ছাড়া অন্যস্থানে সাগরে না নামতে নির্দেশনা দেন বিচ ব্যবস্থাপনার সঙ্গে সংশ্লিষ্টরা। কিন্তু এরপরেও অপ্রত্যাশিতভাবে ঘটছে, প্রাণহানির ঘটনা।

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2019-2020 | কক্সবাজার ক্রাইম নিউজ
Theme Customized By Shah Mohammad Robel