পিকনিক বাসের সঙ্গে ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ চকরিয়ায়, নিহত ১

চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়ায় একটি পিকনিক বাসের সঙ্গে ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছে অন্তত ১৬ জন। আহতদের মধ্যে আশংকাজনক অবস্থায় ৫ জনকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। বাকিদেরকে উদ্ধার করে স্থানীয় বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বুধবার (১২ জানুয়ারি) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মালুমঘাট হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক সাফায়েত হোসেন।

নিহত ব্যক্তি হলেন সৌদিয়া বাসের চালক মীর আহমদ (৩৫)। তাঁর গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রাম জেলার সাতকানিয়া উপজেলায়।

ঘটনাস্থলে চট্টগ্রাম প্রতিদিনের প্রতিনিধি মুকুল কান্তি দাশ আহতদের সাথে কথা বলে জানান, চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড পৌরসভা থেকে ৪০ জন বিভিন্ন বয়সী লোক পিকনিক করতে সৌদিয়া পরিবহনের একটি বাসে করে কক্সবাজার যাচ্ছিল।এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান সৌদিয়া বাসের চালক সাতকানিয়ার মীর আহমদ (৩৫)। এ ঘটনায় বাসের ২০ জন আহত হয়।

মালুমঘাট পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক সাফায়েত হোসেন জানান, বুধবার সকালে সীতাকুণ্ড পৌর ব্যবসায়ী সমিতির উদ্যোগে কক্সবাজারে পিকনিকে যাচ্ছিলেন ব্যবসায়ীরা। সকাল সাড়ে ১১টার দিকে তাদের বহনকারী সৌদিয়া পরিবহনের বাসটি চকরিয়া উপজেলার ডুলাহাজারার পাগলিরবিল ইউনিয়নের পাগলিরবিল নামক স্থানে পৌঁছায়। এ সময় বাসটির একটি চাকা পাংচার হওয়ায় বিপরীতমুখী একটি ট্রাকের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হলে সৌদিয়া বাসটি সড়কের উপর উল্টে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই বাসটির চালক মারা যান। গুরুতর আহত ৫ জনকে চট্টগ্রাম মেডিকেলে এবং বাকিদের স্থানীয় মালুমঘাট হাসপাতালসহ বিভিন্ন হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.