৯৯৯ এ ফোন পেয়ে আত্নহত্যার চেষ্টাকারী যুবককে উদ্ধার করেও শেষ পর্যন্ত বাঁচানো গেলনা

কক্সবাজার প্রতিনিধি:

কক্সবাজারের একটি হোটেল কক্ষে স্ত্রীর সামনেই গলায় ফাঁস দিয়েছেন সৌরভ সিকদার (৩০) নামে এক যুবক। প্রত্যক্ষদর্শী নারী সৌরভের দ্বিতীয় স্ত্রী। এসময় ৯৯৯ এ ফোন করা হলে পুলিশ মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। তবে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

সোমবার (২ আগস্ট) রাত ৮টার দিকে সৈকতের কলাতলী পয়েন্টে একটি হোটেলে এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, প্রথম স্ত্রীর সাথে ছাড়াছাড়ির পর ঢাকার আনিকা তাসনিম নামের এক নারীকে দ্বিতীয় বিয়ে করে সৌরভ ঢাকার পান্থপথে বাস করতেন।

কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি (তদন্ত) মোহাম্মদ সেলিম উদ্দিন জানান, ফোনে যুবকের আত্নহত্যাচেষ্টার খবর পেয়ে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে হাপাতালে নিয়ে যায়। তবে সেখানে তাকে বাঁচানো যায়নি। সৌরভ সিকদার কক্সবাজারের কুতুবদিয়ার দক্ষিণ ধুরুং এলাকার বাসিন্দা।

এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করা হয়েছে। নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

হোটেল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, সৌরভ সিকদার ও তার স্ত্রী আনিকা তাসনিম ১৬ জুলাই থেকে এই হোটেলের ৭১৭ কক্ষে অবস্থান করছিলেন।

পুলিশকে আনিকা জানিয়েছেন, তাকে ঘরে তোলা নিয়ে পরিবারের সাথে মনোমালিণ্য চলছিল সৌরভের সাথে। এ নিয়ে বাড়ির কারো সাথে ফোনে কথা-কাটাকাটির জেরে গলায় ফাঁস দেয় সৌরভ।

ওসি জানান, দ্বিতীয় স্ত্রীকে হয়তো সৌরভের পরিবার মেনে নিচ্ছিল না। এসব নিয়ে পারিবারিক দ্বন্দ্ব চলছিল কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.